যমুনা প্রতিদিন
ঢাকামঙ্গলবার , ৪ মে ২০২১
  1. English
  2. অর্থ ও বাণিজ্য
  3. আইন-আদালত
  4. আন্তর্জাতিক
  5. খেলাধুলা
  6. গণমাধ্যম
  7. চাকরি
  8. ছবিঘর
  9. জাতীয়
  10. জেলার খবর
  11. তথ্যপ্রযুক্তি
  12. দেশজুড়ে
  13. ধর্ম
  14. নারী ও শিশু
  15. প্রবাসের কথা
আজকের সর্বশেষ সবখবর

নাগেশ্বরীতে কীটনাশক ব্যবসায়ীর ভূল ঔষধে কৃষকের সর্বনাশ

Link Copied!

কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরীর হাসনাবাদ ইউনিয়নের ন্যডারপাড় গ্রামের আবুল কালামের ৫০শতক জমির ধান পুড়ে গেছে দোকানদারের ভূল ঔষধে। সে বিভিন্ন সময়ে মানুষের জমি বর্গা চাষ করে।

এ মৌসুমে ৫০ শতক জমিতে বর্গাচাষী হিসাবে তেজ গোল্ড ও ২৮জাতের ধান চাষ করেছে। ধানের ফলন ভাল হলেও জমিতে ছত্রাক জনিত রোগ দেখা দেয়।

ধান চাষী মুনিয়াহাট বাজারে কীটনাশক ঔষধের দোকানদার আব্দুস ছামাদের নিকট পরামর্শ নিতে গেলে আব্দুস ছামাদ তাকে প্যারাটক্স ও ফলিকুর নামক দুই ফাইল ঔষধ দেয়। পরের দিন কৃষক ওই জমিতে ঔষধ স্প্রে করে দেয়ার ফলে সমস্ত ধান পুড়ে গেছে।

কৃষক দোকানী আব্দুস ছামাদের সাথে সাক্ষাত করলে সে ঔষধ বিক্রির কথা অস্বীকার করে। এ ব্যাপারে ন্যাডার পারের জসিজুল মন্ডল বলেন – জমিতে ছত্রাক ধরেছে, দোকানদার ভূল করে ঘাস মারা ঔষধ দিয়ে সমস্ত ধান পুড়ে দিয়েছে ।

কৃষক বলেন-আমার নিজের কোন জমি নাই অন্যের জমি বর্গা চাষ করে খাই, ভূল ঔষধের কারনে আমার সব ধান নষ্ট হয়ে গেছে, এখন আমি পরিবার নিয়ে কি খাব,আমি এর বিচার চাই।

উপসহকারী কৃষি কর্মকর্তা আকতার জামিল জানান,অভিযোগটি সত্য মিমাংসার চেষ্টা চলছে।

প্রিয় পাঠক আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর সরাসরি জানাতে ই-মেইল করুন নিম্নের ঠিকানায়  jamunaprotidin@gmail.com