যমুনা প্রতিদিন
ঢাকারবিবার , ২৩ জানুয়ারি ২০২২
  1. English
  2. অর্থ ও বাণিজ্য
  3. আইন-আদালত
  4. আন্তর্জাতিক
  5. খেলাধুলা
  6. গণমাধ্যম
  7. চাকরি
  8. ছবিঘর
  9. জাতীয়
  10. জেলার খবর
  11. তথ্যপ্রযুক্তি
  12. দেশজুড়ে
  13. ধর্ম
  14. নারী ও শিশু
  15. প্রবাসের কথা
আজকের সর্বশেষ সবখবর

মাদকের বিরুদ্ধে ৮৬ হাজার ২৮৪-টি অভিযানের পরেও বেড়েছে ইয়াবা-গাঁজার আমদানি,আইস নিয়েও চিন্তা

রুহুল আমীন খন্দকার,স্টাফ রিপোর্টার
জানুয়ারি ২৩, ২০২২ ৭:৪৫ অপরাহ্ণ
Link Copied!

মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতর, পুলিশ, বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি), র‌্যাপিড একশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব) ও বাংলাদেশ কোস্ট গার্ড-এ সব সংস্থা ২০২১ সালে (নভেম্বর পর্যন্ত) মাদকের বিরুদ্ধে ৮৬ হাজার ২৮৪টি অভিযান চালিয়েছে।গড়ে প্রতি মাসে প্রায় ০৮ (আট) হাজার অভিযান চালানো হলেও কমানো যাচ্ছে না মাদকের আনাগোনা।

এর মাঝে বেড়ে চলেছে গাঁজা ও ইয়াবার আমদানি। নতুন করে মাথাব্যথা হয়ে দাঁড়িয়েছে আইস তথা ক্রিস্টাল মেথ। মাদক নিয়ন্ত্রণ অধিদফতর ও সংশ্লিষ্ট বাহিনী গুলো থেকে পাওয়া বিভিন্ন সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে।

গত বছর মাদকবিরোধী অভিযানে গ্রেফতার হয় ১ লাখ ১২ হাজার ৬০৩ জন। উদ্ধার করা হয় যথাক্রমে, ৪ কোটি ৮৩ লাখ ৮৩ হাজার ৯০৬ পিস ইয়াবা, ৪১৫ কেজি হেরোইন, দেড় কেজি কোকেন, ৬৯ কেজি আফিম, ৭৫ হাজার ৯৮০ কেজি গাঁজা, ৫ লাখ ৩২ হাজার ৭৩০ বোতল ফেনসিডিল, ২ লাখ ৫ হাজার ৩১৪ বোতল বিদেশি মদ ও ৮৯ হাজার ৭৪টি ইনজেকটিং ড্রাগ।

র‌্যাবের অভিযানে এখন পর্যন্ত ১৯ কেজি আইস উদ্ধার হয়েছে। কোস্টগার্ড উদ্ধার করেছে ০১ কেজি আইস। ২০২১ সালে প্রায় ১৩ কেজি আইস তথা ক্রিস্টাল মেথ উদ্ধার করেছে বিজিবি। এ ছাড়াও মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতর উদ্ধার করেছে ৪ কেজি আইস।

গত তিন বছরে মাদকবিরোধী অভিযান ও গ্রেফতার বিষয়ে বাংলাদেশ পুলিশ সদর দফতরের গণমাধ্যম শাখার এআইজি মো. কামরুজ্জামান গণমাধ্যমকে বলেন, মাদক নিয়ন্ত্রণ একটি চলমান প্রক্রিয়া। এর বিরুদ্ধে আমরা জিরো টলারেন্স নীতিতে চলি। মাদক কারবারিরা যতই কৌশল নিয়ে থাকুক গোপন তথ্যের ভিত্তিতে তাদের গ্রেফতার করছি।

র‌্যাবের আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন গণমাধ্যমকে বলেন, র‌্যাব মাদকের বিরুদ্ধে অভিযান পরিচালনার পাশাপাশি সচেতনতামূলক কার্যক্রমও চালিয়ে আসছে। মাদক কারবারিদের ওপর নজরদারিও অব্যাহত আছে।

তিন বছরে গাঁজা উদ্ধার : ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অপরাধ বিজ্ঞান বিভাগের চেয়ারম্যান ড. জিয়া রহমান গণমাধ্যমকে বলেন, মাদক নিয়ন্ত্রণ করতে হলে সীমান্তে নজরদারি বাড়াতে হবে। তা না হলে নানা ফাঁক-ফোকর দিয়ে দেশে মাদক ঢুকবেই। মাদক নিয়ন্ত্রণে দীর্ঘমেয়াদি পরিকল্পনা নিতে হবে। শুধু বাহককে ধরে মাদক নিয়ন্ত্রণ সম্ভব নয়। পেছনে যারা জড়িত তাদের শনাক্ত করে আইনের আওতায় আনতে হবে।

উল্লেখ্য, গত তিন বছরে অভিযান ও গ্রেফতার : ২০২১ সালে ৮৬ হাজার ২৮৪টি অভিযানে গ্রেফতার হয় ১ লাখ ১২ হাজার ৬০৩ জন। ২০২০ সালে ৮৫ হাজার ৭১৮টি অভিযানে গ্রেফতার ১ লাখ ১৩ হাজার ৫৪৩ জন। ২০১৯ সালে ১ লাখ ২৪ হাজার ৯৮টি অভিযানে গ্রেফতার হয় ১ লাখ ৬২ হাজার ৮৪৭ জন।

তিন বছরে ইয়াবা উদ্ধার ২০২১ সালে ইয়াবা উদ্ধার হয় ৪ কোটি ৮৩ লাখ ৮৩ হাজার ৯০৬ পিস। ২০২০ সাথে উদ্ধার ছিল ৩ কোটি ৬৩ লাখ ৮১ হাজার ১৭ পিস। ২০১৯ সালে ৩ কোটি ৪ লাখ ৪৬ হাজার ৩২৮ পিস। ২০২১ সালে হেরোইন উদ্ধার হয় ২১৬ কেজি। ২০২০ সালে ২১১ কেজি। ২০১৯ সালে ৩২৪ কেজি।

২০২১ সালে গাঁজা উদ্ধার হয় ৭৫ হাজার ৯৭৯ কেজি। ২০২০ সালে ৫০ হাজার ৭৯ কেজি। ২০১৯ সালে ৩২ হাজার ৬৫৭ কেজি। ৫ লাখ ৩২ হাজার ৭৩০ বোতল ফেন্সিডিল উদ্ধার হয় ২০২১ সালে। ২০২০ সালে ১০ লাখ ৭ হাজার ৯৭৭ বোতল ও ২০১৯ সালে উদ্ধার হয় ৯ লাখ ৭৬ হাজার ৬৬৩ বোতল।

প্রিয় পাঠক আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর,খবরের পিছনের খবর সরাসরি জানাতে ই-মেইল করুন।আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব। jamunaprotidin@gmail.com